Random Posts

ঘুরে আসুন ঐতিহাসিক নিদর্শন লালবাগ কেল্লায় | lalbager kella dhaka | Mystery of Lalbag Fort

ব্যস্ত নগরী ঢাকাতেই লুকিয়ে আছে অনেক ঐতিহাসিক স্থান। প্রাচীন ইতিহাস, সভ্যতা ও স্থাপত্যের টানে প্রায় সময়ই এসব স্থানে ভিড় লেগে থাকে দর্শনার্থীদের পদচারণায়। রাজধানী ঢাকার কেন্দ্রস্থলে মোঘল আমলে স্থাপিত প্রাচীন দুর্গ হলো লালবাগের কেল্লা। যা পুরান ঢাকার একটি ঐতিহাসিক নিদর্শন। লালবাগ কেল্লা মোগল আমলের বাংলাদেশের একমাত্র ঐতিহাসিক নিদর্শন। যেখানে একইসঙ্গে ব্যবহার করা হয়েছে কষ্টি পাথর, মার্বেল পাথরসহ নানান রঙ-বেরঙের টালি। লালবাগ কেল্লা ছাড়া বাংলাদেশের আর কোনো ঐতিহাসিক নিদর্শনে এমন বৈচিত্র্যময় সংমিশ্রণ পাওয়া যায়নি। এখানকার স্থাপনার অন্তর্গতঃ পরীবিবির সমাধি,তিনগম্বুজ বিশিষ্ট লালবাগ কেল্লা মসজিদ,লালবাগ জাদু ঘর অন্যতম। এটি মোগল আমল এর একটি চমৎকার নিদর্শন। টিকেট প্রাপ্তিস্থানঃ লালবাগ কেল্লার দরজার ঠিক ডান পাশেই টিকেট কাউন্টার, জনপ্রতি টিকেট এর দাম ২০ টাকা করে, তবে পাঁচ বছরের কম কোন বাচ্চার জন্যে টিকেট এর দরকার পড়েনা। যেকোনো বিদেশি দর্শনার্থীর জন্যে টিকেট মূল্য ২০০ টাকা । বন্ধ-খোলার সময়সূচীঃ গ্রীষ্মকালে সকাল ১০টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত কেল্লা খোলা থাকে। মাঝখানে দুপুর ১টা থেকে ১.৩০ পর্যন্ত আধ ঘণ্টার জন্যে বন্ধ থাকে। আর শীতকালে সকাল ৯টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত খোলা থাকে। শীতকালেও দুপুর ১টা থেকে ১.৩০ পর্যন্ত বন্ধ থাকে। আর সবসময়ের জন্যেই শুক্রবারে জুম্মার নামাযের জন্যে সাড়ে বারোটা থেকে তিনটা পর্যন্ত বন্ধ থাকে। রবিবার সাধারণ ছুটি এবং সোমবার বেলা ২.০০ থেকে লালবাগ কেল্লা খোলা থাকে। এছাড়াও সরকারী কোন বিশেষ দিবসে লালবাগ কেল্লা থাকে । কিভাবে যাবেন আজিমপুর বাসষ্ট্যান্ডে নেমে ১৫/২০ টাকা রিক্সা ভাড়া দিয়ে লালবাগে যাওয়া যায়। দর্শনাথী ইচ্ছা করলে পায়ে হেঁটেও লালবাগে যেতে পারেন। ঢাকার সদরঘাট লঞ্চটার্মিনাল থেকে বাবু বাজার হয়ে লালবাগে যাওয়া যায়।



Post a Comment

0 Comments